+88 01309-817903
|
info@goldenyouth-foundation.org

ইসলামের শিক্ষা

Golden Youth Foundation > News > ইসলামের শিক্ষা

ইসলামের শিক্ষা

  • Posted by: GYFoundation

ইসলামের শিক্ষা অনুযায়ী মানুষ যখন ক্ষতিগ্রস্ত ও বিপদগ্রস্ত হয়, তখন তার ধর্মের ভাই অন্য মানুষকে বিপদ-আপদ থেকে মুক্তির জন্য পাশে দাঁড়াতে হয়। অসহায় মানুষের দুর্দিনে তাদের সর্বপ্রকার আর্থিক সহায়তা, ত্রাণ ও পুনর্বাসন, চিকিৎসাসেবা ও শুশ্রূষায় এগিয়ে আসা ইমানের দাবি। ইসলামে পারস্পরিক উপকারের চেষ্টা এবং যার যা কিছু সামর্থ্য আছে তদনুসারে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষকে সাহায্য-সহযোগিতা করতে বলা হয়েছে, যাতে দুর্দশাগ্রস্ত মানুষের দুঃখ-কষ্ট কিছুটা লাঘব হয়।
আর তা যদি না করতে পারেন, তাহলে অসহায়, অভাবী ও হতদরিদ্রদের সঙ্গে মিষ্টি কথা বলবে, ভালো ব্যবহার করবে, যাতে পরকালে তোমার নিরাপত্তা নিশ্চিত হয়।’ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের সাহায্যার্থে মোটা অঙ্কের অর্থ দান করতে হবে, এমন কোনো বাধ্যবাধকতা নেই। সাহায্য করতে শুধু টাকা-পয়সা দিয়েই নয়, বিপদগ্রস্ত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সহমর্মিতা ও আন্তরিকতার সঙ্গে সেবা করেও মানুষকে সহযোগিতা করা যায়। ইসলাম মানবিক কারণে সামান্য পরিমাণ সহায়তাকেও খাটো করে দেখে না। সে জন্য অতিশয় নগণ্য পরিমাণ দানকেও উৎসাহিত করা হয়েছে।
রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘যে ব্যক্তি দান-সাদকা দেয়, তা একটি খেজুর পরিমাণও হোক না কেন, আল্লাহ তা নিজ হাতে গ্রহণ করেন। তবে শর্ত এই যে, তা বৈধ পথে উপার্জিত হতে হবে। কেননা, আল্লাহ এই বস্তুকেই পছন্দ করেন এবং তা বৃদ্ধি করে নেন আর তা এতটাই যে, এই খেজুর এক পাহাড় পরিমাণ হয়ে যায়।’( আল হাদীস)

Author: GYFoundation